ছাত্রীর মুখে ঘুষি মারলেন শিক্ষিকা!

আওয়াজবিডি ডেস্ক
৩০ জুলাই ২০২২, দুপুর ১০:০০ সময়

পরে তার অভিভাবক রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডসহ বিভিন্ন দফতরে অভিযোগ করেছেন।

অভিযোগ থেকে জানা যায়, শ্রীমতি নেহা রানী (১৪) লক্ষীপুর বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৭ম শ্রেণির ছাত্রী। গত ২৬ জুলাই শ্রেণিকক্ষে বেঞ্চে বসা নিয়ে অন্য সহপাঠির সঙ্গে কথা কাটাকাটি হয় তার। এ নিয়ে ওই সহপাঠি শিক্ষিকা নাজমা খাতুনকে বিষয়টি জানায়।

এতে শিক্ষিকা নাজমা খাতুন খুবই রাগান্বিত হন। শেষে তিনি শিক্ষার্থী নেহা রানীর মুখে ঘুষি মারেন। এতে নেহা রানীর চোখের নীচে জখম হয়। পাশাপাশি ব্যথায় অসুস্থ হয়ে পড়ে ওই শিক্ষার্থী। পরে নেহা রানীর বাবা মাসুম লাল খবর পেয়ে বিদ্যালয় থেকে মেয়েকে রাজশাহী মেডিক্যাল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে বাড়িতে নিয়ে যান।

পরের দিন ২৭ জুলাই নেহা রানীর মা নাজমা খাতুনের সঙ্গে দেখা করেন। এতে অভিযুক্ত শিক্ষিকা নাজমা খাতুন আরও রেগে যান। পাশাপাশি অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজসহ নিচু জাতের (হরিজন সম্প্রদায়ের) মানুষ বলে ভৎসনা করেন। এছাড়া বিষয়টি নিয়ে বেশি বাড়াবাড়ি করলে দেখে নেওয়ার হুমকি দেন।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকের কাছে অভিযোগ দেওয়া হয়। তিনি অভিযুক্ত শিক্ষিকার বিরুদ্ধে কোনো পদক্ষেপ নেননি। পরে ওই ছাত্রীর বাবা মাসুম লাল রাজশাহী শিক্ষা বোর্ডসহ বিভিন্ন দফতরে অভিযোগ করেন। এছাড়া রাজপাড়া থানায় গিয়ে একটি লিখিত অভিযোগ দেন।

এ ব্যাপারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইরিন জাফর বলেন, তিনি পদক্ষেপ নেননি এই বিষয়টি সত্য নয়। অভিভাবকের লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে অভিযুক্ত শিক্ষিকাকে কারণ দর্শানের নোটিশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি ঘটনা তদন্তে তিন সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন করা হয়েছে। কমটিকে তিন কর্মদিবসের মধ্যে রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে। কমিটির রিপোর্ট পেলে তার পর সেই অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

তবে এ অভিযোগের পর শিক্ষিকা নাজমা খাতুন প্রধান শিক্ষকের কাছে দাবি করছেন- দুই ছাত্রীর মধ্যে গণ্ডগোল চলছিল। তিনি দু’জনকেই নিবৃত্ত করেন। তাকে ঘুষি মারা হয়নি। ওরা নিজেরা হাতাহাতির সময় এমমনটি হয়ে থাকতে পারে। তার বিরুদ্ধে আনা অভিযোগটি মিথ্যা।

ইব্রাহিম/আওয়াজবিডি/ইউএস

ব্রাজিল-আর্জেন্টিনার মতো খেলা হবে, আপনারা প্রস্তুত থাকেন: ওবায়দুল কাদের

আওয়াজবিডি ডেস্ক
৮ ডিসেম্বর ২০২২, রাত ৮:২৮ সময়
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের —ছবি-সংগৃহীত

আজ বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে তিনটার দিকে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলনে ভার্চ্যুয়ালি যোগ দিয়ে উদ্বোধনী বক্তব্যে এসব কথা বলেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘ডিসেম্বর মাস। খেলা হবে, খেলা হবে, খেলা হবে। কুমিল্লা খেলবে। সামনে বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনাল। আর্জেন্টিনা খেলবে, ব্রাজিল খেলবে। সবাই প্রস্তুত থাকেন। রাজনীতির মাঠেও খেলা হবে। খেলা হবে দুর্নীতির বিরুদ্ধে, নাশকতার বিরুদ্ধে, লুটপাটের বিরুদ্ধে, ভোট ডাকাতির বিরুদ্ধে, ভুয়া ভোটারের বিরুদ্ধে, সাম্প্রদায়িকতা ও অগণতান্ত্রিক শক্তির বিরুদ্ধে। কুমিল্লাবাসী, আপনারা তৈরি থাকেন।’

কুমিল্লার লালমাই উপজেলার বাগমারা উচ্চবিদ্যালয় মাঠে এ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল।

সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য শেখ ফজলুল করিম সেলিম এবং বিশেষ অতিথি ছিলেন সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া। এতে বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ, স্থানীয় সরকারমন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম, কেন্দ্রীয় নেতা সুজিত রায় নন্দী, আবদুস সবুর, সংসদ সদস্য নাছিমুল আলম চৌধুরী, আবুল হাসেম খান, সংরক্ষিত নারী আসনের সংসদ সদস্য আঞ্জুম সুলতানা সীমা প্রমুখ।

ইব্রাহিম/আওয়াজবিডি/ইউএস